loading

FOREX BASIC COURSE

ফরেক্স VS স্টক মার্কেট

  • 4.0 (33 reviews)
  • PUBLISH BY: FxsuccessBD
  • December 15th, 2019 10:13 pm

বর্তমান বিশ্বে বিনিয়োগকারীদের মধ্যে আলোড়ন সৃষ্টিকারী দুটি মার্কেটের নাম হল ফরেক্স এবং স্টক মার্কেট। এই দুই মার্কেটকেই পুঁজি বাজার বা বিনিয়োগ বাজার বলা হয়। কিন্তু ফরেক্স মার্কেট এবং স্টক মার্কেট সম্পুর্ণ দুইটি স্বাধীন এবং ভিন্ন প্রকৃতির মার্কেট। যার একটির সাথে অন্যটির কোন সম্পর্কই নেই। উভয় মাকের্ট এ ট্রেডের উপাদানসমূহও আলাদা। যেমন ফরেক্স মার্কেটের জন্য মুদ্রা বা কারেন্সি এবং স্টক বা শেয়ার  মার্কেটের জন্য শেয়ার বা সিকিউরিটিজ ।

 

যেমন:  শেয়ার মার্কেট  হল এমন একটি বাজার যেখানে বিভিন্ন সসীম দায়বদ্ধ কোম্পানিগুলো (পাবলিক লিমিটেড কোম্পানি)  স্টক একচেঞ্জ এ নিবন্ধিত হয়ে তাদের শেয়ার বেচা কেনা করে থাকে।

স্টক মার্কেট প্রাইমারি এবং সেকেন্ডারি এই দুই ভাগে বিভক্ত। 

IC

প্রাইমারি ষ্টক মার্কেট:

প্রাইমারি স্টক মার্কেট একটি দেশের অর্থনীতিতে অনেক গুরুত্বপূর্ণ প্রভাব ফেলে। প্রাইমারি মার্কেটে কোম্পানিগুলো সাধারণত তাদের IPO প্রবর্তন করে। নিয়মানুসারে, এই মার্কেটে সিকিউরিটিজের ক্রেতারা ব্যক্তিগত বা প্রাতিষ্ঠানিক (বিনিয়োগ তহবিল, বিমা প্রতিষ্ঠানসমূহ, ইত্যাদি) বিনিয়োগকারী। প্রাইমারি মার্কেটের সিকিউরিটি বিবেচিত হয় সরাসরি বা মধ্যস্ততাকারিদের মাধ্যমে বিনিয়োগকারীদের মধ্যে লেনদেনের মাধ্যমে। 

সেকেন্ডারি স্টক মার্কেটের:  

মধ্যে থাকে ওভার দ্য কাউন্টার মার্কেট এবং স্টক এক্সচেঞ্জ। এখানে গ্রাহকরা অন্য বিনিয়োগকারীদের নিকট তাদের ইতোমধ্যে লিমিটেড শেয়ারগুলো পুনরায় বিক্রি করে। প্রাইমারির মত সেকেন্ডারি মার্কেট রাষ্ট্রের বিনিয়োগ প্রবাহের পরিমাণকে কোন ভাবে প্রভাবিত করে না। এই মার্কেটের মূল অংশগ্রহণকারীরা হল ফটকাবাজ(Venturer) যারা কম মূল্যে কিনে এবং বেশি মূল্যে বিক্রি করে।

FBS

একটি স্টকমার্কেটের প্রধান নিয়ন্ত্রকদের মধ্যে একটি হল মূল্য। এটা গঠিত হয় ফটকাবাজ, মধ্যস্ততাকারি এবং বিনিয়োগকারীদের সরাসরি অংশগ্রহণে। একটি মার্কেটের মূল্যসমূহ গঠিত হয় বিভিন্ন নীতির মাধ্যমে : উদৃত সিকিউরিটিজ, সেগুলোর অনুমোদনকারী, চাহিদা, বাজার পরিস্থিতি। এই নীতিগুলো বিবেচিত হয় স্টক মার্কেটে মূল্য গঠনের মাধ্যমে, প্রাথমিক সর্বোচ্চ বা সর্বনিম্ন মূল্য নির্ধারণে, বিক্রয় থেকে দ্রুত মুনাফা অর্জনে, মার্কেটে প্রবেশে, এবং মার্কেটের একটি অংশবিশেষ অধিকার করতে।  স্টক ট্রেডারদের বিভিন্ন প্রকার লক্ষ্য থাকে: স্টক হারের পার্থক্য থেকে মুনাফা অর্জন, ডেভিডেন্ট অর্জন, ইত্যাদি। স্টক মার্কেটে স্থবরতা এবং নিরাপত্তা সত্ত্বেও এটাতে ট্রেডিং এর পূর্বে যেকাউকে ঝুঁকি কমাতে মার্কেট বিশ্লেষণ করার পরামর্শ দেয়া হয়।স্টক মার্কেট সাধারনত অবস্থিত হয় স্টক এক্সচেঞ্জে। বিশ্বের বৃহত্তম স্টক এক্সচেঞ্জগুলো অবস্থিত  মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য , জাপান, ভারত, চীন, কানাডা, জার্মানি ( ফ্রাংক স্টক এক্সচেঞ্জ ) , ফ্রান্স, দক্ষিণ কোরিয়া ও নেদারল্যান্ডসে।

ফরেক্স মার্কেট সম্পর্কে:

ফরেক্স মার্কেট হল একটি আন্তর্জাতিক বৈদেশিক বিনিময় বাজার। এই নামটি এসেছে ফরেন (Foreign) এবং এক্সচেঞ্জ (Exchange) শব্দদ্বয়ের সংমিশ্রণ থেকে যার অর্থ হল বৈদেশিক বিনিময় কার্যক্রম। মূলত ফরেক্স হল বৈদেশিক মুদ্রা কেনা-বেচা করার ব্যবসা। এই মার্কেটে মুদ্রার মূল্যমান প্রতিনীয়তই এক উঠানামা করতে থাকে। এই মুদ্রার দাম ওঠা-নামার উপর ট্রেড করে লাভ (পিপস্) করতে হয়। ​

মুদ্রা হারের পরিবর্তন সাধিত হয় সরকারি ব্যক্তিদের পাশাপাশি বাণিজ্যিক কোম্পানির মাধ্যমে, যারা পণ্য বা সেবা রপ্তানির মাধ্যমে অর্জিত মুদ্রা দেশী মুদ্রায় কারেন্সি পরিবর্তন করে থাকে। যদিও এটা বৈদেশিক মুদ্রাবাজার লেনদেনের মাত্র ৫% ভাগ। আর বাকি ৯৫% লেনদেন সংঘটিত হয় বিশ্বের শক্তিধর ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে যারা বৈদেশিক মুদ্রা ক্রয়-বিক্রয়ের  মাধ্যমে কিছু মুনাফা অর্জন করে থাকে। এরাই মুলত ফরেক্স মার্কেটের মূল চালিকাশক্তি।

ফরেক্স এবং স্টক মার্কেটের মধ্যে আরেকটা পার্থক্য হল ট্রেডিং এর জন্য প্রয়োজনীয় অর্থের পরিমাণ। স্টক মার্কেট থেকে শেয়ার কিনতে একজনের প্রয়োজন হবে বেশ বড় অঙ্কের অর্থ, ১০ হাজার মার্কিন ডলার থেকে ১০০ হাজার মার্কিন ডলার পর্যন্ত কিন্তু ফরেক্স মার্কেটে ট্রেডিং ১ ডলার দিয়েও শুরু করা যায়।

ফরেক্স মার্কেটের উল্লেখযোগ্য বিষয় হল এটার স্থিতিশীলতা। কেননা যে কোন  আর্থিক বাজারে  সবচেয়ে খারাপ বিষয়টা হল মেল্টডাউন বা স্টক সূচকের পতন। যদিও, ফরেক্স বাজার তার নির্দিষ্ট উপাদান মুদ্রার মাধ্যমে সুরক্ষিত থাকে যা অন্যান্য স্টক মার্কেট এবং নিত্যপ্রয়োজনীয় বাজার থেকে আলাদা। 

যদি শেয়ারের মূল্যহ্রাস ঘটে তবে এটাকে বলা হয় আর্থিক পতন। কিন্তু যদি মার্কিন ডলারের পতন হয় তবে, অন্য মুদ্রা আরও শক্তিশালী হয়। সুতারাং এটা মার্কেটে গতির সঞ্চালন করে।  অতিরিক্ত মুনাফা অর্জনের জন্য এটা অনেক ভালো একটি সুযোগ। উল্লেখিত যে বৈশিষ্ট্য ফরেক্স লাইনের চমৎকার স্থবিরতা থাকে তা হল: মুদ্রা হল সবচেয়ে তরল এবং নির্ভরযোগ্য ট্রেডিং উপাদান।

 

ফরেক্স মার্কেট এবং স্টক মার্কেট এর ব্যবসায়িক সুবিধা:

একটি স্টক মার্কেটে ট্রেডিং অনেকটা নিয়ন্ত্রিত এবং স্থির যেখানে প্রফিট হলেও লিমিটেড আবার লস হলেও একটা লিমিটের মধ্যে হয়ে থাকে কিন্তু ফরেক্স মার্কেটের লেভারেজ থাকার কারনে এখানে বিনিয়োগের তুলনায় প্রফিট অনেক অনেক গুন করা যায় এবং ঝুকি নিলে আপনার বিনিয়োগও হারাতে পারেন নিমিষের মধ্যে।  

যদিও, আয়তন এবং দ্রুত-বর্ধনশীলতার দিক থেকে এটাই সবচেয়ে বড় বাজার। ফরেক্সে দৈনিক বাণিজ্যিক লেনদেনের পরিমাণ প্রায় ৬ ট্রিলিয়ন মার্কিন ডলার যেটা আমেরিকার সকল স্টক এক্সচেঞ্জ মার্কেটের সম্মিলিত লেনদেনের পরিমাণের ৩০ গুনেরও বেশি।

স্টক মার্কেটের তুলনায় ফরেক্স মার্কেটে ব্যবসায় শুরু করা অনেক অনেক সহজ। একটি নির্ভরযোগ্য ব্রোকার খুজে পাওয়া খুব কঠিন কিছু নয় কারণ বাজারে অনেক নির্ভরযোগ্য ব্রোকার রয়েছে। ব্রোকারে একটি ফ্রি ট্রেডিং একাউন্ট ওপেন করতে সময় লাগবে মাত্র ২ মিনিট এবং একাউন্টি ভেরিফাই করতে আপনাকে প্রয়োজন হবে আপনার ন্যাশেনাল আইডি কার্ড এবং ব্যাংক স্টেটমেন্ট। ব্রোকারের Validation টিম আপনার একাউন্ট ভেরিফাই করে দিবে ২৪ ঘন্টার মধ্যে, তারপর আপনি আপনার ব্যবসায়িক কার্যক্রম শুরু করতে পারবেন।এসকল বিষয় নিয়ে আমরা পরবর্তিতে বিশদভাবে আলোচনা করব।

Recent Article
loading
Broker Section